রাত ৩:১৯, বুধবার ।। ১৮ই মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
রাত ৩:১৯, বুধবার ।। ১৮ই মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

পদধারী বিদ্রোহীদের বাদ দিয়ে আ.লীগের সম্মেলন করার নির্দেশ

দলের নির্দেশনা অমান্য করে ইউনিয়ন ও উপজেলা নির্বাচনে যেসব নেতাকর্মী বিদ্রোহীপ্রার্থী হয়ে দলীয় প্রার্থীর বিরুদ্ধে নির্বাচন করেছে তাদেরকে দল থেকে বাদ দিয়ে সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটি করে সম্মেলন করার নির্দেশ দিয়েছেন আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা।

শনিবার গণভবনে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সভায় দলের বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতাদের এই নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। বিকালে সাড়ে ৫টায় মিটিং শুরু হয়। প্রায় রাত ১১টা পর্যন্ত কার্যনির্বাহীর বৈঠক চলে।

বৈঠক শেষে দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের সাংবাদিকদের বলেন, আওয়ামী লীগের জাতীয় কাউন্সিল অনুষ্ঠিত হওয়ার আগে ডিসেম্বর মধ্যে মেয়াদোত্তীর্ণ সব সহযোগী ও ভাতৃপ্রতিম সংগঠনের সম্মেলন শেষ করতে হবে।

গণভবনে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার কাছে তৃণমূল পর্যায়সহ দলীয় বিভিন্ন পরিস্থিতি তুলে ধরেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এবং সাংগঠনিকসহ মোট ১৮ জন নেতানেত্রী। এসময় মির্জা আজম, এসএম কামাল হোসেন দেশের বাইরে থাকায় বাকি ছয় বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক তাদের সাংগঠনিক রিপোর্ট পেশ করেন দলীয় প্রধানের কাছে।

সম্মেলন সূত্রে জানা গেছে, তৃণমূলে সংগঠনকে ঢেলে সাজানোর নামে ত্যাগী-পরীক্ষিত নেতাদের বাদ দেওয়া, হাইব্রিড, নব্য লীগার ও টাকার কুমিরদের দলে পদ দেওয়া হচ্ছে বলে দলীয় সভানেত্রীকে জানান বেশ কয়েকজন নেতাকর্মী। যেসব নেতাকর্মী আওয়ামী লীগের দলীয় প্রার্থীর বিরুদ্ধে নিজের ‘মাইম্যান’ সৃষ্টি করে প্রার্থী দিয়েছেন তাদের বিষয়েও আলোচনা হয়েছে।

স্থানীয় সরকার নির্বাচনে যেসব নেতাকর্মী বিদ্রোহীপ্রার্থী হয়েছিল এখনো দলীয় পদে আছে এবং তাদেরকে ক্ষমা না করে, দলীয় পদ থেকে বাদ দিয়ে সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটি করে সম্মেলন করার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

বৈঠকে নীলফামারীর ডোমার উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক তোফায়েল আহমেদের অব্যাহতি বহাল রাখাসহ নতুন করে তাকে শোকজ করার নির্দেশ দেওয়া হয়। শোকজের জবাব পাওয়ার পর চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হবে বলে জানানো হয়।

এছাড়া প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ নির্বাচন করতে বিএনপির মাঠের আন্দোলনে বাধা না দেওয়ার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

বৈঠক সূত্রে আরো জানা গেছে, আগামী ২৩ জুন আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী। এ উপলক্ষে সারাদেশে বর্ণাঢ্য আয়োজন করার জন্য এখনই প্রস্তুতি নিতে বলা হয়েছে।

আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আফজাল হোসেন বলেন, কার্যনিবাহী বৈঠকে দলের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়েছে। জেলা, উপজেলাসহ ডিসেম্বরের আগে মেয়াদোত্তীর্ণ সব সহযোগী ও ভাতৃপ্রতিম সংগঠনের সম্মেলন শেষ করতে বলা হয়েছে। ডোমার উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক তোফায়েল আহমেদের অব্যাহতি বহাল রাখাসহ নতুন করে তাকে শোকজ করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

আফজাল হোসেন বলেন, আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে সারাদেশে বর্ণাঢ্য আয়োজন করার জন্য এখনই প্রস্তুতি নিতে নির্দেশনা দিয়েছেন দলীয় সভাপতি শেখ হাসিনা।

সূত্র:  ঢাকা টাইমস

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

Leave a Reply

Your email address will not be published.

সম্পর্কিত খবর
সাম্প্রতিক খবর